শিরোনাম :
Home / ও আমার দেশের মাটি / পরনির্ভরতা কমাতে কৃষি প্রণোদনা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে—পোরশায় খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার<<মহাদেবপুর দর্পণ>>

পরনির্ভরতা কমাতে কৃষি প্রণোদনা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে—পোরশায় খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার<<মহাদেবপুর দর্পণ>>

Spread the love

মহাদেবপুর দর্পণ, এম রইচ উদ্দিন, স্টাফ রিপোর্টার, পোরশা (নওগাঁ), ৮ নভেম্বর ২০২১ :

খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপি বলেছেন, নিজেদের প্রয়োজনীয় পণ্য উৎপাদন বৃদ্ধির মাধ্যমে পরনির্ভরতা কমাতে সরকারি প্রণোদনা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। মন্ত্রী প্রণোদনা নিয়ে চাষাবাদ বাড়াতে কৃষকদের প্রতি আহবান জানান।

সোমবার (৮ নভেম্বর) সকালে তিনি তাঁর নির্বাচনী এলাকা নওগাঁর পোরশা উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে রবি ২০২১-২২ মৌসুমে কৃষি প্রণোদনা কর্মসূচির আওতায় ৩ হাজার ৫২০ জন ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে গম, ভুট্টা, সরিষা, সূর্যমুখী, খেসারি, চিনাবাদাম, মুগ ও পেঁয়াজ বীজ এবং রাসায়নিক সার বিতরণ উপলক্ষে উপজেলা প্রশাসন ও কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দানকালে কথাগুলো বলেন।

মন্ত্রী আরো বলেন, বাজারে প্রায়শই যে সকল পণ্যের দাম বাড়ে সেগুলো আমাদের দেশে কম উৎপাদন হয়। পরনির্ভরতার কারণে সেসব পণ্য আমদানি করতে হয়। আন্তর্জাতিক বাজারে দাম বাড়লে দেশেও দাম বাড়ে। বাংলাদেশের মাটি অনেক উর্বর। এখানে যা ফলাতে চান তাই ফলবে।

তিনি বলেন, আমাদের দেশে তেলের দাম কম হওয়ায় পাচার হয়ে যেত। আন্তর্জাতিক বাজারের সাথে সমন্বয় রেখে দেশে ডিজেলের দাম বাড়ানো হয়েছে। এতে কৃষক কিছুটা ক্ষতিগ্রস্ত হবে। কৃষকবান্ধব সরকার কৃষককে প্রণোদণার মাধ্যমে সে ক্ষতি পুশিয়ে নিতে সাহায্য করবে।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, গ্রামীণ অর্থনীতির বাংলাদেশ তিন স্তম্ভের উপর দাড়িয়ে আছে। এগুলো হলো কৃষি খাত, গার্মেন্টস খাত ও প্রবাসীদের রেমিটেন্স। এ সেক্টরগুলো শক্তিশালী হওয়ার কারণে করোনাকালে বিশ্ব অর্থনৈতি মন্দায় পতিত হলেও বাংলাদেশের অর্থনীতি ছিলো শক্তিশালী।

উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শাহ্ মঞ্জুর মোরশেদ এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাজমুল হামিদ রেজা এতে সভাপতিত্ব করেন। স্বাগত বক্তব্য দেন, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ সঞ্জয় কুমার সরকার।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কাজিবুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা তোজাম্মেল হক, পোরশা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শফিউল আজম খাঁন, উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মাযহারুল ইসলাম, জনস্বাস্থ্য প্রকৌশলী মিলন কুমারসহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা ও সুবিধাভোগী কৃষক উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথি ১ হাজার ৪০০ জন কৃষকের মাঝে গম, ২০০ জন কৃষকের মাঝে ভুট্টা, ১ হাজার ৫০০ জন কৃষকের মাঝে সরিষা, ১০০ জন কৃষকের মাঝে সূর্যমুখী, ১৫০ জন কৃষকের মাঝে মশুর ডাল, ১০০ জন কৃষকের মাঝে খেসারী ডাল, ২০ জন কৃষকের মাঝে চিনাবাদাম, ৩০ জন কৃষকের মাঝে মুগ ডাল ও ২০ জন কৃষকের মাঝে পেয়াজ বীজ বিতরণ করেন।

পরে ডাকবাংলা প্রঙ্গণে খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার উপজেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় যোগ দেন। উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আরেনায়ারুল ইসলাম, সহ-সভাপতি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ মঞ্জুর মোরশেদ চৌধুরী, সাধারন সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেনসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ এতে উপস্তিত ছিলেন। #

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*